×
ব্রেকিং নিউজ :
বাংলাদেশ সাম্প্রদায়িক সম্প্রীতির উজ্জ্বল দৃষ্টান্ত : এনামুল হক শামীম মান্দায় কৃষকের মাঝে বিনামূল্যে বীজ ও সার বিতরণ কোটি টাকা আত্মসাত : ৪ ব্যাংক কর্মকর্তাসহ ৫ জনকে বিভিন্ন মেয়াদে কারাদন্ড সমৃদ্ধ বাংলাদেশ গড়ে তুলতে কন্যা শিশুদের যথাযথ নিরাপত্তা নিশ্চিত করা অপরিহার্য : প্রধানমন্ত্রী অপশক্তি সম্পর্কে সতর্ক থাকার আহ্বান ওবায়দুল কাদেরের পবিত্র ঈদ-ই-মিলাদুন্নবী আগামি ৯ অক্টোবর : আন্তঃমন্ত্রণালয় সভা বিএনপি বৈঠক করছে আনুবীক্ষণিক দলগুলোর সাথে : তথ্যমন্ত্রী চট্টগ্রাম ইপিজেডে চীনা গার্মেন্টস শিল্পের ৯৫ লাখ ডলার বিনিয়োগ ঢাকার উদ্দেশে প্রধানমন্ত্রীর লন্ডন ত্যাগ নদী ও পরিবেশ খাতের 'ফাউন্ডার' শেখ হাসিনা : নৌপরিবহন প্রতিমন্ত্রী
  • আপডেট টাইম : 17/11/2021 02:11 AM
  • 2216 বার পঠিত

সিরাজগঞ্জের উল্লাপাড়া উপজেলার কয়ড়া ইউনিয়নে আসন্ন নির্বাচনে চেয়ারম্যান পদে স্বতন্ত্র প্রার্থী বীর মুক্তিযোদ্ধা খোরশেদ আলম ও তার কর্মীদের উপরে বুধবার হামলার অভিযোগ আনা হয়েছে। এই ইউনিয়নের আওয়ামী লীগ মনোনীত চেয়ারম্যান প্রার্থী হেলাল উদ্দিন ও তার কর্মীরা এই হামলা চালিয়েছে বলে অভিযোগ করেন বীর মুক্তিযোদ্ধা খোরশেদ আলম। ওই হামলায় খোরশেদ আলমসহ তার ৬ জন কর্মী আহত হয়েছেন। এদের মধ্যে ভদ্রকোল গ্রামের রকিব হাসানকে (৪৫) গুরুতর আহত অবস্থায় প্রথমে সিরাজগঞ্জ বঙ্গমাতা শেখ ফজিলাতুন্নেছা মুজিব জেনারেল হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। পরে অবস্থায় অবনতি দেখে উন্নত চিকিৎসার জন্য ঢাকায় পাঠানো হয়েছে। বীর মুক্তিযোদ্ধা খোরশেদ আলমও সিরাজগঞ্জ ফজিলাতুন্নেছা জেনারেল হাসপাতালে চিকিৎসা নিয়েছেন। এই ঘটনায় এলাকায় এখন চরম উত্তেজনা বিরাজ করছে। পুলিশ পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রনে রেখেছে।

বীর মুক্তিযোদ্ধা খোরশেদ আলম গণমাধ্যম কর্মীদের কাছে অভিযোগ করে বলেন, তিনি তার কর্মীদের নিয়ে বেলা সাড়ে ৯টার দিকে কয়ড়া এলাকায় নিবার্চনী প্রচার প্রচারনায় গেলে মানিকদহ গ্রামের সড়ক সেতুর কাছে পৌঁছিলে কয়ড়া ইউনিয়ন পরিষদের বর্তমান চেয়ারম্যান হেলাল উদ্দীন তার কর্মীদের নিয়ে তাদের উপরে হামলা চালায়। এসময় বীর মুক্তিযোদ্ধা খোরশেদ আলমসহ তার ৬জন কর্মী আহত হন। মুক্তিযোদ্ধা খোরশেদ আলম তাৎক্ষণিক বিষয়টি উল্লাপাড়া মডেল থানা পুলিশকে অবহিত করেছেন। হামলাকারীদের বিরুদ্ধে মামলার প্রস্তুতি নিচ্ছেন বলে জানান।

এ ব্যাপারে অভিযুক্ত চেয়ারম্যান নৌকার প্রার্থী হেলাল উদ্দীনের সঙ্গে যোগাযোগ করলে তিনি খোরশেদ আলমের উপরে হামলার বিষয়টি অস্বীকার করেন। হেলাল উদ্দীন জানান, খোরশেদ আলম নিবার্চনে তার (খোরশেদ) প্রতি জনগনের সহানুভুতি আদায় এবং হেলাল উদ্দীনের প্রচারনাকে বাধাগ্রস্থ করতে সাংবাদিকদেরকে মিথ্যা অভিযোগ দিয়েছেন।

এ বিষয়ে উল্লাপাড়া মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা(ওসি) হুমায়ুন কবিরের সঙ্গে যোগাযোগ করলে তিনি জানান, হামলার খবর পেয়ে তিনি পুলিশ বাহিনী নিয়ে দ্রুত ঘটনাস্থলে যান এবং পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রনে আনেন। ওসি আরো জানান, মুক্তিযোদ্ধা খোরশেদ আলম থানায় মামলা দিলে তিনি অভিযুক্তদের বিরুদ্ধে দ্রুত ব্যবস্থা নেবেন বলে জানান।

নিউজটি শেয়ার করুন

এ জাতীয় আরো খবর..
ফেসবুকে আমরা...