×
ব্রেকিং নিউজ :
খাদ্য, বিদ্যুত, আর্থিক সংকট কাটিয়ে ওঠার লক্ষ্যে সু-সমন্বিত প্রচেষ্টার জন্য প্রধানমন্ত্রীর আহ্বান উল্লাপাড়ায় নিখোঁজ ভ্যান চালকের লাশ তিন দিন পর বিল থেকে উদ্ধার নড়াইলে ৭০ পিচ ইয়াবা ট্যাবলেট জব্দ গ্রেপ্তার ১ নানা মাধ্যমে মুক্তিযুদ্ধের ইতিহাস নতুন প্রজন্মের মাঝে ছড়িয়ে দিতে হবে : সংস্কৃতি প্রতিমন্ত্রী কাপ্তাই হ্রদে মাছের পোনা অবমুক্ত পদ্মাসেতু নির্মাণ বিষয়ে শেখ হাসিনার বক্তব্য নিয়ে বিএনপি নেতৃবৃন্দ বিভ্রান্তি ছড়াচ্ছে : ওবায়দুল কাদের কান উৎসবে 'মুজিব' বায়োপিকের ট্রেলার উদ্বোধন বিএনপিসহ সকল রাজনৈতিক দলকে আলোচনায় বসার আহবান জানানো হবে : সিইসি শেখ হাসিনার হাতেই বাংলাদেশ নিরাপদ : খাদ্যমন্ত্রী বিশ্ব মেডিটেশন দিবস কাল
  • আপডেট টাইম : 11/05/2022 05:35 PM
  • 39 বার পঠিত

সহিংসতার দ্বিতীয় রাতে বিক্ষিপ্ত অগ্নিসংযোগের পর শ্রীলঙ্কার পুলিশকে বিক্ষোভকারীদের দেখামাত্র গুলির নির্দেশ দেয়া হয়েছে। এক শীর্ষ কর্মকর্তা বুধবার এএফপি’কে এ কথা জানান।
পুলিশ বলেছে, সহিংসতায় সোমবার থেকে এ পর্যন্ত ৮ জনের মৃত্যু হয়েছে। দেশটিতে ভয়াবহ অর্থনৈতিক সংকটের হতাশা থেকে ছড়িয়ে পড়া বিক্ষোভে প্রেসিডেন্ট গোটাবায়া রাজাপাকসের সমর্থক ও বিরোধীদের মধ্যে এই সহিংসতা ছড়িয়ে পড়ে।
এমনকি বিক্ষোভ দমনে কারফিউ জারি করা হয়েছে এবং হাজার হাজার নিরাপত্তা সদস্যকে আরো সহিংসতা এড়াতে ‘দেখা মাত্র গুলির’ নির্দেশ দেয়া হয়েছে। মঙ্গলবার সন্ধ্যায় বিক্ষোভকারীরা রাজাপাকসের আত্মীয়ের একটি বিলাসবহুল হোটেলে আগুন দিয়েছে।
নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক এক সিনিয়র নিরাপত্তা কর্মকর্তা বলেছেন, ‘এটি আর স্বতঃস্ফূর্ত ক্রোধ নয়, বরং সংঘবদ্ধ সহিংসতা। যদি পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে না আনা হয় তাহলে পুরোপুরি নৈরাজ্যের দিকে যেতে পারে।’  
নিরাপত্তা কর্মকর্তারা বলেছেন, ৮৫ হাজার সদস্যের পুলিশ বাহিনীকে ‘আক্রমণাত্মক অবস্থান গ্রহন করতে বলা হয়েছে’ এবং গোলযোগকারীদের বিরুদ্ধে লাইভ গোলাবারুদ ব্যবহার করার নির্দেশ দেয়া হয়েছে।  
সোমবার সহিংসতা শুরু হওয়ার পরপরই জারি করা কারফিউ বুধবার সকালে তুলে নেওয়ার কথা ছিল, কিন্তু সহিংসতার কারণে তা আরো ২৪ ঘন্টা বাড়ানো হয়েছে।
পুলিশ বলেছে, হোটেলে আগুনের পাশাপাশি মঙ্গলবার সন্ধ্যায় তারা যানবাহনে আগুন দেওয়ার চেষ্টা করলে জনতাকে ছত্রভঙ্গ করতে পুলিশ দু’টি স্থানে ফাঁকা গুলি ছুঁড়েছে।
পুলিশ বিক্ষোভকারীদের টার্গেটে থাকা বেশ কয়েকজন বিচারকের নিরাপত্তা জোরদার করেছে।
অর্থনৈতিক সংকটের সমাধান এবং প্রেসিডেন্ট গোটাবায়ে রাজাপাকসের পদত্যাগের দাবীতে কয়েক সপ্তাহধরে চলমান শান্তিপূর্ণ বিক্ষোভের অংশ হিসেবে সোমবার কলম্বোতে প্রতিবাদ সভার আয়োজন করা হয়। সেখানে সরকার সমর্থকরা লাঠিসোটা নিয়ে সংঘবদ্ধ আক্রমন চালায়। এতে গণবিক্ষোভ ছড়িয়ে পড়ে।
এর পর জনতা গভীর রাত পর্যন্ত দেশজুড়ে প্রতিশোধমূলক হামলা চালায়। এতে ক্ষমতাসীন দলের রাজনীতিবিদদের কয়েক ডজন নেতার বাড়িতে তারা আগুন ধরিয়ে দেয় এবং বিক্ষোভকারীরা ঝড়ের বেগে রাজধানীতে প্রধানমন্ত্রীর সরকারি বাসভবনে ঢ়ুকে পড়ার চেষ্টা চালায়।
প্রেসিডেন্টের ভাই প্রধানমন্ত্রী মাহিন্দা রাজাপাকসের পদত্যাগের কয়েক ঘন্টার মধ্যে জনতা তার বাসভবনে হামলা চালায়, মঙ্গলবার ভোরের আগে এক সামরিক অভিযানে মাহিন্দা রাজাপাকসেকে বাসভবন থেকে সরিয়ে নেয়া হয়।
শ্রীলঙ্কা অতি প্রয়োজনীয় পণ্য সামগ্রী আমদানির জন্য প্রয়োজনীয় ডলার ফুরিয়ে যাওয়ায় সংকট এড়াতে আন্তর্জাতিক মুদ্রা তহবিলের সাথে কর্মকর্তা পর্যায়ে আলোচনা শুরু করেছে।
জাতিসংঘ মানবাধিকার প্রধান এবং ইউরোপিয়ান ইউনিয়নের সঙ্গে কন্ঠ মিলিয়ে যুক্তরাষ্ট্র মঙ্গলবার বলেছে, ‘তারা ক্রমবর্ধমান সহিংসতা এবং সেনা মোতায়েনের বিষয়ে উভয়ই উদ্বিগ্ন।’
পররাষ্ট্র দপ্তরের মুখপাত্র নেড প্রাইস সাংবাদিকদের বলেছেন, ‘আমরা জোর দিচ্ছি যে শান্তিপূর্ণ বিক্ষোভকারীদের কখনোই সহিংসতা বা ভয় দেখানো উচিত নয়। তা সামরিক বাহিনী বা বেসাসরিক ইউনিটের যে পক্ষ থেকেই হোক না কেন।’

নিউজটি শেয়ার করুন

এ জাতীয় আরো খবর..
ফেসবুকে আমরা...