×
ব্রেকিং নিউজ :
দুর্যোগ মোকাবিলায় টেলিযোগাযোগ সেবা খুবই গুরুত্বপূর্ণ : ত্রাণ প্রতিমন্ত্রী জাতির পিতা বঙ্গবন্ধুর সমাধিতে গাজীপুরের সংসদ সদস্য শামসুন্নাহারের শ্রদ্ধা বগুড়ায় বিএডিসি’র উদ্যোগে শীতবস্ত্র বিতরণ গলফ টুর্ণামেন্টে বিজয়ীদের মধ্যে পুরস্কার বিতরণ রাজনৈতিক কর্মকাণ্ডে কোনো বাধা নেই: আইনমন্ত্রী আলজেরিয়ায় অনুষ্ঠিত পিইউআইসি’র সভায় বাংলাদেশ সংসদীয় প্রতিনিধিদলের অংশগ্রহণ প্রধানমন্ত্রী রোববার রাজশাহীতে ১,৩১৬.৯৭ কোটি টাকার বিভিন্ন প্রকল্প উদ্বোধন করবেন বিএনপির আন্দোলন চলে রিমোট কন্ট্রোলে অদৃশ্য নির্দেশে : ওবায়দুল কাদের দম ফুরিয়ে এখন হাঁটার পথ ধরেছে বিএনপি : তথ্যমন্ত্রী ডেঙ্গু আক্রান্ত হয়ে ২ হাসপাতালে ভর্তি
  • আপডেট টাইম : 18/01/2023 09:41 PM
  • 30 বার পঠিত

বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিক্যাল বিশ্ববিদ্যালয়ের ইন্টারভেনশনাল হেপাটোলজি ডিভিশনে ফ্যাটি লিভারের চিকিৎসায় ক্লিনিক্যাল ট্রায়াল শুরু হয়েছে।
আজ বিশ্ববিদ্যালয়ের ডা. মিল্টন হলে আয়োজিত অনুষ্ঠানে ফ্যাটি লিভারের হেপাটোলজি বিভাগের চেয়ারম্যান অধ্যাপক ডা. মো. আইয়ুব আল মামুনের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি ছিলেন উপাচার্য অধ্যাপক ডা. মো. শারফুদ্দিন আহমেদ।
উপাচার্য বলেন, সম্প্রতি বিশ্ববিদ্যালয়ের গবেষনা বাজেট ৫ কোটি টাকা থেকে বাড়িয়ে ২০ কোটি টাকায় উন্নিত করা হয়েছে। বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষকদের গবেষনায় উৎসাহিত করার জন্য প্রবর্তন করা হয়েছে ভাইস-চ্যান্সেলর পদক। বর্তমানে বিশ্ববিদ্যালয়ে ২০ জনের অধিক পোষ্টগ্র্যাজুয়েট চিকিৎসক পিএইচডি করছেন। 
তিনি এসময় বিশ্ববিদ্যায়ের গবেষনায় আরো মনোযোগী হতে বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষকদের প্রতি আহ্বান জানান।
অনুষ্ঠানে মূল প্রবন্ধ উপস্থাপন করেন ইন্টারভেনশনাল হেপাটোলজি ডিভিশনের ডিভিশন প্রধান অধ্যাপক ডা. মামুন আল মাহতাব স্বপ্নীল এবং আর উপস্থাপন করেন বিভাগের রেসিডেন্ট ডা. মো: সাবিবর হোসেন।
প্রবন্ধে স্বপ্নীল জানান, বাংলাদেশের ওষুধ শিল্পের ৭৪ মিলিয়ন ডলার রপ্তানী আয়ের বিপরীতে প্রতিবেশি ভারত প্রতি বছর আয়ুর্বেদ খাত থেকে উপার্জন করছে ৮০০ মিলিয়ন ডলারেরও বেশি। অথচ এক সময়কার ঐতিহ্যবাহী আয়ুর্বেদ এবং হেকিমী চিকিৎসা শাস্ত্র হারিয়ে যাচ্ছে। এখনও দেশে এই শাস্ত্রগুলোর ছড়িয়ে ছিটিয়ে থাকা জ্ঞান আর এদেশের স্থানীয় হার্বাল ওষুধগুলোকে বৈজ্ঞানিক উপায়ে ক্লিনিক্যাল ট্রায়ালের মাধ্যমে ঠিকমত উপস্থাপন করা সম্ভব হলে বাংলাদেশ  এক্ষেত্রে  অগ্রনী ভূমিকা নিতে পারবে। বর্তমান পৃথিবীতে যখন পরিবেশ বান্ধব, অর্গানিক খাদ্য ও চিকিৎসার উপর জোর দেয়া হচ্ছে, তখন এক্ষেত্রে  বাংলাদেশের সম্ভবনা অত্যন্ত উজ্জ্বল । 
তিনি আরো জানান, এ বিষয়ে কার্যকর গবেষনার জন্য তারা এরই মধ্যে জাপানের এহিমি বিশ্ববিদ্যালয় ও ওইতা বিশ্ববিদ্যালয়, ভারতের ত্রিপুরা বিশ্ববিদ্যালয় এবং দেশে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের সেন্টার ফর এ্যাডভান্সড রিসার্চ এন্ড সাইন্সেস, ফার্মেসী অনুষদ ও বায়োকেমিষ্ট্রি বিভাগ বাংলাদেশ বিজ্ঞান ও শিল্প গবেষনা পরিষদ, বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়ের ইন্সটিটিউট অব বায়োটেকনোলজি, রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের বোটানী বিভাগ, জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ের ফার্মেসী অনুষদ, ইষ্ট ওয়েষ্ট বিশ্ববিদ্যালয়ের ফার্মেসী বিভাগ এবং রাজশাহী কৃষি গবেষনা ইন্সটিটিউটের সাথে গবেষনা কোলাবরেশন গড়ে তুলেছেন। 
ইন্টারভেনশনাল হেপাটোলজি ডিভিশনের উদ্যোগে অনুষ্ঠানে অন্যান্যের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন বিশ্ববিদ্যালয়ের মেডিসিন অনুষদের ডীন অধ্যাপক ডা. মাসুদা বেগমসহ সিনিয়র শিক্ষকবৃন্দ,ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের সেন্টার ফর এ্যাডভান্সড রিসার্চ এন্ড সাইন্সেসের চিফ সাইন্টিস্ট ড.গাজী নুরুন নাহার সুলতানা ও প্রিন্সিপাল সাইন্টিস্ট ড. জাকির সুলতান, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় ক্লিনিক্যাল ফার্মেসি এবং ফার্মাকোলজি বিভাগের অধ্যাপক ড. ফিরোজ আহমেদ ও অধ্যাপক ড. শেখ জহির রায়হান এবং বায়োকেমিষ্ট্রি বিভাগের অধ্যাপক ড. মো. রিয়াজুল ইসলাম, বাংলাদেশ বিজ্ঞান ও শিল্প গবেষনা পরিষদের চিফ সাইন্টেফিক অফিসার ড. রেজাউল করিম, রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের বোটানী বিভাগের অধ্যাপক ড. এস. এ. হায়দার প্রমুখ।

নিউজটি শেয়ার করুন

এ জাতীয় আরো খবর..
ফেসবুকে আমরা...