×
ব্রেকিং নিউজ :
  • আপডেট টাইম : 24/01/2023 05:12 PM
  • 29 বার পঠিত

 রাশিয়ার পররাষ্ট্রমন্ত্রী ল্যাভরভ সোমবার বলেছেন, ইউক্রেনে যা চলছে তা আর হাইব্রিড যুদ্ধ নয়, বরং পশ্চিমা দেশ ও রাশিয়ার মধ্যে একটি বাস্তব যুদ্ধ। খবর তাসের।
দক্ষিণ আফ্রিকার পররাষ্ট্রমন্ত্রী নালেদি পান্ডোরের সাথে আলোচনার পর এক সংবাদ সম্মেলনে তিনি বলেন, ‘ইউক্রেনে যা ঘটছে তা নিয়ে কথা বলার সময় আমরা এই সত্যটি নিয়ে কথা বলেছি যে, এটি আর একটি হাইব্রিড যুদ্ধ না, বরং এটি একটি বাস্তব যুদ্ধ। পশ্চিমারা রাশিয়ার বিরুদ্ধে দীর্ঘদিন ধরে প্রস্তুতি গ্রহণ করে আসছে। তারা শতাব্দীর পর শতাব্দী ধরে ইউক্রেনে থাকা রুশ ভাষা থেকে শুরু করে সংস্কৃতি সবকিছু ধ্বংস করার চেষ্টা করছে এবং লোকজনকে তাদের মাতৃভাষা বলতে নিষেধ করছে।’
ল্যাভরভ বলেন, ইউক্রেনে সকল ক্ষেত্রে এটি একটি সাধারণ চর্চা হয়ে দাঁড়িয়েছে। ইউক্রেনের সাবেক প্রেসিডেন্ট পোরোশেঙ্কে এবং বর্তমান প্রেসিডেন্ট জেলেনস্কি নির্বাচিত হওয়ার পরপরই যুদ্ধবাজ প্রেসিডেন্টে পরিণত হন। অথচ তারা শান্তি প্রতিষ্ঠার শ্লোগান দিয়ে নির্বাচিত হন।
রাশিয়ার এ শীর্ষ কূটনীতিক স্মরণ করেন যে, ইউক্রেন এমন আইন গ্রহণ করেছে যা রাশিয়ান ভাষায় শিক্ষা ও সংবাদমাধ্যম নিষিদ্ধ করে। এছাড়া ইউক্রেনে এমন সব আইন রয়েছে যা বাস্তবে দৈনন্দিন জীবনে রুশ ভাষার ব্যবহার নিষিদ্ধ করে।
ল্যাভরভ আরো বলেন, ‘রাশিয়ান ভাষা সম্পর্কিত যে কোন যোগাযোগ নিষিদ্ধ। আর এসবের সবকিছু পশ্চিমারা সমর্থন করে আসছে। এক্ষেত্রে পশ্চিমারা বিভাজনের প্রতীক নব্য-নাৎসিদের নিয়মিত কার্যক্রমকে সমর্থন করে আসছে যা নুরেমবার্গ ট্রাইব্যুনাল দ্বারা নিষিদ্ধ এবং অপরাধ হিসেবে স্বীকৃত। পশ্চিমারা এসবকে সমর্থন করছে।’

নিউজটি শেয়ার করুন

এ জাতীয় আরো খবর..
ফেসবুকে আমরা...